আন্তর্জাতিক

ভারতের রাজস্থানে এক নারীকে ২৩ জনের গণধর্ষণ

রাজস্থানের বিকানেরে নিজের জমি দেখে ফেরার পথে অপহরণ করে দিল্লির ২৮ বছর বয়সী এক নারীকে ২৩ জন দফায় দফায় ধর্ষণ করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।   অভিযুক্তদের মধ্যে দু’জনকে শনাক্ত করা গেছে। ওই দু’জন-সহ ২৩ জন অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগে মামলা দায়ের করে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। এই ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ছ’জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।   গত মঙ্গলবার বিকানেরের পুলিশ সুপার সওয়াই সিংহ গোদারার সঙ্গে দেখা করেন ওই নারী। তার অভিযোগ, দুপুরে তিনি যখন জয়পুর রোডের ধারে খাটু শ্যাম মন্দির এলাকায় গাড়ির জন্য অপেক্ষা করছিলেন এমন সময় দু’জন লোক তাকে জোর করে গাড়িতে তোলে। চলন্ত গাড়িতেই তাকে ধর্ষণ করে ওই দুই ব্যক্তি। ফোনে আরও ছয়জনকে ডেকে নেয় ওই দুই অভিযুক্ত। তারাও ওই যুবতীকে ধর্ষণ করে। এর পর স্থানীয় পালানা গ্রামে একটি সরকারি পাওয়ার সাব স্টেশনে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে। সেখানে আরও অনেকে মিলে তাকে ধর্ষণ করে।    ওই নারীর দাবি, পরের দিন অর্থাৎ ২৬ সেপ্টেম্বর ভোরে যেখান থেকে অপহরণ করা হয়েছিল, সেখানেই তাকে ফেলে দিয়ে পালিয়ে যায় দুই অভিযুক্ত।   স্থানীয় পুলিশ কর্মকর্তা জানিয়েছেন, এফআইআর যে জায়গায় কথা উল্লেখ করেছেন ওই যুবতী, সেখান থেকে কনডম উদ্ধার হয়েছে। দু’জন অভিযুক্তকে শনাক্ত করা গেছে। নির্যাতিতার জবানবন্দিও রেকর্ড করেছেন তদন্তকারীরা।   পুলিশ সুভাষ, রাজু রাম, ভানওয়াল লাল, মনোজ কুমার, জুগল ও মদন নামে ছ’জনকে গ্রেফতার করেছে। এদের প্রত্যেকের বয়স বিশ বছরের ঊর্ধ্বে। বাসস।  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *