বাংলাদেশ

কাতালোনিয়া সংকটে বাংলাদেশের সমর্থন চায় স্পেন

কাতালোনিয়া স্বাধীনতা ঘোষণাকে কেন্দ্র করে সৃষ্ট সংকটে বাংলাদেশকে ঘনিষ্টভাবে পাশে চায় স্পেন। একইসঙ্গে স্পেনের ঐক্যের প্রতি ঢাকার পূর্ণ সমর্থন চায় মাদ্রিদ। অখণ্ড স্পেনের পক্ষে ঢাকার প্রকাশ্য বিবৃতি ও অবস্থান আশা করে দেশটির সরকার। ঢাকায় স্প্যানিশ দূতাবাস এ লক্ষ্যে পররাষ্ট্রমন্ত্রী, সচিবসহ মন্ত্রণালয় এবং সরকারের দায়িত্বশীল পর্যায়ে ঘনিষ্ট যোগাযোগ অব্যাহত রেখেছে। রবিবার সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এ কথা জানান বাংলাদেশে স্পেনের রাষ্ট্রদূত আলবারো দে সালাস।   রাষ্ট্রদূত জানান, বাংলাদেশ-সহ দক্ষিণ এশীয় দেশগুলো স্পেন পরিস্থিতির ওপর নজর রাখছে। তবে এখনও এশিয়ার কোনো দেশ প্রকাশ্যে তাদের অবস্থান তুলে ধরেনি। ইউরোপ, যুক্তরাষ্ট্রসহ পশ্চিমা বিশ্ব (ভেনিজুয়েলা ছাড়া) স্পেনের অখণ্ডতার পক্ষে দৃঢ় অবস্থান নিয়েছে। গত ১ অক্টোবর কাতালোনিয়ার গণভোটের পর তিনি সরকারের দায়িত্বশীল পর্যায়ে পরিস্থিতির বিস্তারিত অবহিত করেছেন। স্পেন সরকার দেশটির সংবিধান ও আইন অনুযায়ী কাতালোনিয়া ইস্যুতে পদক্ষেপ নিচ্ছে। ১১ অক্টোবর স্পেনের জাতীয় দিবস উপলক্ষে ঢাকায় আয়োজিত অনুষ্ঠানে সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর স্পেনের অখণ্ডতার পক্ষেই বক্তব্য রাখেন।    রাষ্ট্রদূত মনে করেন, সংস্কৃতিমন্ত্রীর বক্তব্য বাংলাদেশ সরকারের অবস্থান স্পষ্ট করে। রাষ্ট্রদূত আরও বলেন, ঢাকার সঙ্গে মাদ্রিদের যে সম্পর্ক তাতে আমাদের প্রত্যাশা কাতালোনিয়ার স্বাধীনতার প্রশ্নে বাংলাদেশ স্পেনের অবস্থানকেই সমর্থন দেবে এবং পাশে থাকবে। এ সময় তিনি বলেন, রোহিঙ্গা সংকটে বাংলাদশের অবস্থানে স্পেনের দৃঢ় সমর্থন রয়েছে। রোহিঙ্গাদের আশ্রয়সহ তাদের প্রতি বাংলাদেশ যে মানবিকতা দেখিয়ে চলেছে তা প্রশংসনীয়।    স্পেন মনে করে, রোহিঙ্গা সঙ্কটের উত্পত্তি মিয়ানমারে, এর সমাধান সেখানেই হতে হবে। রোহিঙ্গা সঙ্কটের সামাধানে ইউরোপের ২৮ রাষ্ট্রের জোট ইইউ সদর দপ্তর ব্রাসেলসে আলোচনা হয়েছে। সেখানে বাংলাদেশের অবস্থানের পক্ষেই ছিল স্পেন। জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে আলোচনা করেছে।   

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *